কাজল আগারওয়ালের সাথে দেখা করতে ৬০ লাখ রুপি!

0
55
কাজল

রুপালি পর্দার তারকাদের দেখা পাওয়া অনেকের কাছেই স্বপ্নের ব্যাপার। প্রিয় নায়ক-নায়িকাকে এক পলক দেখতে ঘণ্টার পর ঘণ্টা অধীর আগ্রহ করতে দেখা যায় ভক্তদের। তার মধ্যে অন্যতম হলো কাজল আগারওয়াল এর সাথে দেখা করাও স্বপ্নের ব্যাপার।

রামানাথপুরের বাসিন্দা ওই যুবক কাজল আগারওয়ালের সঙ্গে দেখা করতে কোনরকম চেষ্টার কমতি করেননি! স্বপ্নের তারকার সান্নিধ্য পেতে অবিশ্বাস্য সব কাণ্ডও ঘটিয়েছেন তিনি। এবার এক লাস্যময়ী নায়িকার সঙ্গে দেখা করতে ৬০ লাখ রুপি খরচ করলেন এই ভক্ত।  তবুও নায়িকা কাজল আগরওয়ালের দেখা মেলেনি অন্ধ অনুরাগীর। 

ঠিক যেন বলিউডের ‘মস্ত’ সিনেমারই গল্প। প্রিয় অভিনেত্রী ‘মল্লিকা’ ওরফে উর্মিলার সঙ্গে দেখা করতে ঘরবাড়ি সব ছেড়েছুড়ে এক ভক্ত (নায়ক) ছুটে গিয়েছিল মুম্বাইয়ে। ঠিক সে রকমই ঘটেছে এবার বাস্তবেও।

দক্ষিণী জনপ্রিয় অভিনেত্রী কাজল আগারওয়াল ব্যবসাসফল তেলেগু সিনেমা ‘মাগাধীরা’ চলচ্চিত্রের মাধ্যমে আলোচনায় আসেন। দক্ষিণে সাফল্যের পর বলিউডেও কাজল উপহার দেন ‘সিংঘাম’ ও ‘স্পেশাল ২৬’-এর মতো ব্লকবাস্টার সিনেমা।  

আরো পড়ুন: এইবার ২.৫ কোটি টাকার কনডমের বিজ্ঞাপনে কাজল আগারওয়াল

ভক্ত-সমর্থকের অভাব নেই লাস্যময়ী জনপ্রিয় অভিনেত্রী কাজল আগারওয়ালের। অভিনয় ও গ্ল্যামারের জাদুতে অনেকেই কুপোকাত। তবে এবার বিপত্তি বাঁধিয়েছেন তাঁর বড়মাপের একজন ভক্ত। তাঁর সাথে দেখা করতে গুনে গুনে ৬০ লাখ রুপি খরচ করেছেন তামিলনাড়ু রাজ্যের রামানাথাপুরাম জেলার ওই ভদ্রলোক। ইন্ডিয়াটিভি নিউজের এক প্রতিবেদন থেকে জানা যায়, স্বপ্নের নায়িকার সঙ্গে দেখা করার জন্য সবকিছু করতেই প্রস্তুত ছিলেন ওই ভক্ত। এ ঘোষণা তিনি প্রকাশ্যেই দিতেন। বহু চেষ্টার পর খোঁজ পেলেন একটি ওয়েবসাইটের। ‘তারকাদের সঙ্গে ভক্তদের দেখা করার সুযোগ করে দেওয়া হয়’ এমনই দাবি ছিল সাইটটির।

মন থেকে চাইলে সবকিছুই পাওয়া যায়— হয়তো বা এ তত্ত্বে আস্থা রেখে খুশিতে আত্মহারা হয়েছিলেন ভক্ত মহোদয়। কিন্তু চক্রটিও যে মন থেকে চাইছিল তাদের উদ্দেশ্য সফল হোক।

যোগাযোগে দেরি করেননি কাজলের পাগলপারা সেই ভক্ত। মুহূর্তের মধ্যেই কথা বললেন তাঁদের সঙ্গে, জানালেন মনোবাসনার কথা। অপর প্রান্ত থেকে জানানো হলো, শুরুতেই ৫০ লাখ রুপি পরিশোধ করতে হবে। সেই সঙ্গে বলা হলো ব্যক্তিগত সব তথ্য দিতে।

আরো পড়ুন: বিয়ে বাড়িতে যে কয়েকটি বদ্রতা আপনার মেনে চলা উচিত!

ধনী পরিবারের সন্তান ভক্তটি টাকা পরিশোধে দেরি করেননি। পরের মাসে তাঁর কাছে আরো কিছু টাকা দাবি করা হয়। কিন্তু কবে তিনি স্বপ্নের নায়িকার দেখা পাবেন, সে ব্যাপারে কিছুই জানানো হচ্ছিল না। একপর্যায়ে ওই ভক্ত বুঝতে পারেন তিনি প্রতারিত হয়েছেন। তিনি তখন আরো অর্থ দিতে অস্বীকৃতি জানান। তবে তত দিনে অনেক দেরি হয়ে গেছে।

এবার ক্ষেপে যায় প্রতারক চক্র। তারা ওই ব্যক্তির আপত্তিকর কিছু ছবি শেয়ার করে এবং ছবিগুলো সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ছড়িয়ে দেওয়ার হুমকি দেয়।

বিষয়টি এখন অবশ্য পুলিশ পর্যন্ত গড়িয়েছে। প্রতারক চক্রকে হন্যে হয়ে খুঁজছে পুলিশ। ‘এরই মধ্যে আমি ওদের ৬০ লাখ রুপি দিয়েছি’, কান্নাজড়িত কণ্ঠে বলছিলেন প্রতারণার শিকার ওই ভক্ত।

তাঁর অভিযোগের ভিত্তিতে প্রতারক চক্রের সঙ্গে যুক্ত সন্দেহে তামিল চলচ্চিত্রের এক প্রযোজক সারাভানা কুমারকে পুলিশি হেফাজতে নেওয়া হয়েছে বলেও জানা গেছে।

প্রিয় পাঠক, আপনিও সম্ভব ডটকমের অনলাইনের অংশ হয়ে উঠুন। লাইফস্টাইল বিষয়ক ফ্যাশন, স্বাস্থ্য, ভ্রমণ, নারী, ক্যারিয়ার, পরামর্শ, খাবার, রূপচর্চা ও ঘরোয়া টিপস নিয়ে লিখুন এবং সংশ্লিষ্ট বিষয়ে ছবিসহ ইনবক্স করুন- আমাদের ফেসবুকে প্রতিদিনের স্বাস্থ্য টিপস লেখা আপনার নামে প্রকাশ করা হবে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here